মেটারনিখ ব্যবস্থা টীকা লেখো | Metternich System

 


মেটারনিখ ব্যবস্থা | মেটারনিখ তন্ত্র | মেটারনিখ যুগ | মেটারনিখ পদ্ধতি


ভূমিকা:

অস্ট্রিয়ার প্রধানমন্ত্রী প্রিন্স মেটারনিখ ফরাসি বিপ্লবের আদর্শকে অস্বীকার করে পুরাতন স্বৈরাচারী রাজতন্ত্র প্রতিষ্ঠার জন্য যে ব্যবস্থা গ্রহণ করেন তা ‘মেটারনিখ ব্যবস্থা’ নামে পরিচিত।


উদ্দেশ্য: 

মেটারনিখ ব্যবস্থার উদ্দেশ্য ছিল ইউরোপে সর্বত্র স্বৈরাচারী রাজতন্ত্র, অভিজাততন্ত্র ও সামন্ততন্ত্রের পুনঃপ্রতিষ্ঠা ঘটানো। মেটারনিখ চেয়েছিলেন ফরাসি বিপ্লবের পূর্বেকার রাজনৈতিক ব্যবস্থাকে ইউরোপের বিভিন্ন দেশে পুনরায় বহাল করতে।


প্রয়োগ: 

মেটারনিখ তাঁর ব্যবস্থার প্রয়োগ ঘটান বিভিন্নভাবে—

১. নেপোলিয়ন ইউরোপের যেসব দেশের রাজাদের সিংহাসনচ্যুত করেছিলেন মেটারনিখ সেইসব রাজার বংশধরদের নিজ নিজ রাজ্যের সিংহাসনে বসান।


২. 'কার্লসবার্ড আদেশনামা’ জারির মাধ্যমে মেটারনিখ সংবাদপত্র, রাজনৈতিক দল প্রভৃতির কণ্ঠরোধ করেন ও জার্মানির জাতীয় আন্দোলন দমনে সচেষ্ট হন।


৩. তুরস্কের বিরুদ্ধে গ্রিস স্বাধীনতা আন্দোলন শুরু করলে তিনি গ্রিসের স্বাধীনতা আন্দোলনের বিরোধিতা করেন।


ব্যর্থতার কারণ: মেটারনিখ ব্যবস্থা শেষপর্যন্ত ব্যর্থ হয়েছিল, কারণ— 


১. পুরাতন রাজতন্ত্রগুলিকে ফিরিয়ে এনে তিনি যে রক্ষণশীলতার পরিচয় দিয়েছিলেন, তা ছিল যুগবিরোধী এবং সংস্কার বিমুখ।


২. ফরাসি বিপ্লব বিশ্বজুড়ে যে স্বাধীনতা, সাম্য ও মৈত্রীর বাণী প্রচার করে তাতে ইউরোপের জনগণ উদ্বুদ্ধ হয়। মেটারনিখের একার পক্ষে এই বিপ্লবের কণ্ঠ রোধ করা সম্ভব ছিল না।  


৩. ইউরোপে আর্থসামাজিক ব্যবস্থার পরিবর্তনও মেটারনিক ব্যবস্থার ব্যর্থতার অন্যতম কারণ ছিল।


তথ্য সূত্র:

ইতিহাস শিক্ষক- অষ্টম শ্রেণী | জে মুখোপাধ্যায়।


একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

নবীনতর পূর্বতন
close